জনপ্রিয় ‘সুপারম্যান’ চরিত্র সৃষ্টির অজানা গল্প

0
4

অতিমানবীয় শক্তি অর্জনের স্বপ্ন ছোটবেলা থেকে অনেকেই দেখেন। মূলত কমিক বইয়ের সুপারহিরোরাই পারে মানুষের এমন অকল্পনীয় স্বপ্নের যোগান দিতে।

সুপারহিরো শব্দটি শুনলেই আমাদের চোখের সামনে চলে আসেন সুপারম্যান, স্পাইডারম্যান বা ব্যাটম্যানের চেহারা।

কালে কালে অনেক সুপারহিরোই হাজির হয়েছে বইয়ের পাতা ও রুপালি পর্দায়। তাদের মাঝে অন্যতম জনপ্রিয় চরিত্র সুপারম্যান।

এর স্রষ্টা ক্লিভল্যান্ডের জেরি সিগাল ও জোয়ি শাস্টার। ফ্রিডরিচ নিটশের ১৮৮৩ সালের বই ‘স্পোক জ্যারাথুস্ট্র’ থেকে অনুপ্রাণিত হয়ে ১৯৩২ সালের অক্টোবরে একটি ‘সায়েন্স ফিকশন’ নামে ম্যাগাজিন প্রকাশ করেন তারা।

ম্যাগাজিনটির তৃতীয় কিস্তিতে ‘দ্য রেইন অফ দ্য সুপার-ম্যান’ দিয়ে যাত্রা শুরু হয় এই সুপারহিরোর।

তবে সেই সুপারম্যান এখনকার সুপারম্যান নয়। ক্ষমতা দিয়ে পুরো বিশ্বে রাজত্ব করতে চেয়েছিল তিনি।

ভিলেন এই সুপারম্যান তখন জনপ্রিয়তা পায়নি। তারপর চরিত্রটিতে পরিবর্তন নিয়ে আসেন জেরি।

সার্কাস অ্যাক্রোব্যাটদের মত কস্টিউম দিয়ে একটি মৌলিক চরিত্র সৃষ্টি করেন তারা। তার চরিত্রের বৈশিষ্ট্যও বদলে দেয়া হয়।

ভিলেন এবার হাজির হলো বীর হিসেবে। যে কিনা বিপদে পড়া মানুষকে সাহায্য করেন তার অতিমানবীয় শক্তি দিয়ে।

এরপর অবশেষে ১৯৩৮ সালে ডিসি কমিকস সায় দেয় জেরি এবং জোইয়ির নতুন এই কমিকবুক নিয়ে।

তারা সিদ্ধান্ত নেয় অ্যাকশন কমিকস নামে নতুন কমিকবুক সিরিজ প্রকাশ করার।

কমিকের রঙিন পাতায় দাপিয়ে বেড়ানো সুপারম্যান ১৯৫১ সালে প্রথমবারের মত বড় পর্দায় আসে ‘সুপারম্যান এন্ড দ্য মোল ম্যান’ সিনেমা দিয়ে।

সেই সিনেমাতে সুপারম্যান হিসেবে অভিনয় করেন জর্জ রিভস।

যদিও এর আগে ১৯৪০ এর দিকে ১৭টি অ্যানিমেটেড শর্ট ফিল্ম মুক্তি পেয়েছিল সুপারম্যানকে নিয়ে।

৮০ বছরের এই দীর্ঘ যাত্রায় অনেক পরিবর্তন আসলেও, মূল্যবোধের জায়গা থেকে এতটুকুও পরিবর্তন হয়নি তুমুল জনপ্রিয় এই কমিক সুপারস্টারের।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here